পাবলিক কনসার্ন

বাংলাদেশকে নিয়ে অপমানজনক ভুল তথ্যে ভরা ভিডিও তৈরীর জন্য বাংলাদেশীজমের অভিনব প্রতিবাদ !!

আর কত? বাংলাদেশ নিয়ে আর কত অপমানজনক, মিথ্যা, ভুল, মনগড়া, আজগুবি ভিডিও বানালে ভারতের ইউটিউবাররা শান্তি পাবে? আমি জানি, কুত্তার লেজ যেমন সোজা হয়না, তেমনি এই ইউটিউবারগুলোও ঠিক হবেনা। আমাদের বাংলাদেশীজম প্রজেক্ট তথা অফিসিয়াল পেইজ, ইউটিউব চ্যানেল থেকে বারবার সতর্কবার্তা দেয়া হলেও এরা বন্ধ যায়নি। এক একটা ভিডিওতে মিলিয়ন মিলিয়ন ভিউ রয়েছে। এইজন্যই দেখি বাইরের মানুষ বাংলাদেশের ব্যাপারে এত ভুল তথ্য কিভাবে জানে। কেন বাংলাদেশ সম্বন্ধে তাদের এতো নেগেটিভ ধারণা। একটা দুইটা বা দশটা নাহ, সারা ইউটিউব ঘেঁটে এমন হাজার হাজার ভিডিও পাওয়া যাবে যা কিনা ভারত আর পাকিস্তানের গাঁজাখোর ইউটিউবাররা বানিয়ে রেখে দিয়েছে আর এদিকে আমাদের দেশের ভাবমুর্তি দিনে দিনে নষ্ট হচ্ছে। কয়জন এর সত্যতা যাচাই করতে যাবে বলেন? মানুষ তো ভিডিও দেখেই অন্য ভিডিওতে চলে যাচ্ছে। মাঝে থেকে যাচ্ছে বাংলাদেশ নামক এই ছোট সুন্দর দেশটার প্রতি নেতিবাচক কিছু ধারণা। আর এই বাংলাদেশই আমাদের দেশ। আমরা কি করছি? আমরা সেইসব ভিডিওতে গিয়ে ইচ্ছামতো গালিগালাজ করে সেই ইউটিউবারের চৌদ্দ গুষ্টি উদ্ধার করছি সাথে ভিউ বাড়িয়ে বাড়িয়ে সেই ভিডিও আরো ভাইরাল করে ফেলছি। কেউ নেই এইগুলোর বিরুদ্ধে কথা বলার। আর কেউ এইগুলোকে প্রোটেষ্ট করতে গেলেই বলে আরে ভাই, কুত্তায় কামড়াইছে বলে কি আপনিও কুত্তারে কামড়াইতে যাবেন? হাউ ফানি? এই হলাম আমরা। আর ওদিকে প্রতিবাদ না করতে করতে অনলাইনে দেশটাকে যে আবর্জনার স্তুপ বানিয়ে ফেললো, সেদিকে নজর যায়না আপনাদের? তারা অমন করবে, আমার দেশের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ করবে আর আমরা বসে বসে আঙ্গুল চুষবো? এই কি আমরা বাংলাদেশী? এই কি আমাদের পরিচয়? নাকি আমরা সংগ্রামী জাতি যারা বারবার লড়ে , যুদ্ধ করে আজ বাংলাদেশী হয়েছি? বিড়ালের মত মিউ মিউ করে বসে থাকলে চলবে না, রয়েল বেঙ্গল টাইগারের মত গর্জন দিয়ে এদের বিরুদ্ধে কথা বলতে হবে। তবে অবশ্যই সেটা ভদ্রতা বজায় রেখে, কারণ ওরা অভদ্রের মত আচরণ করে। আর আমাদের ভদ্র জবাবই তাদের থেকে আমাদের পার্থক্য প্রকাশ করবে যে আমরা আসলেই ভদ্র জাতি। একটা কথা বলি, আজ কেউ যদি আপনার মায়ের ছবিকে নগ্নতার সাথে আর দশজনের সামনে প্রকাশ করে, আপনি কি ঘরে বসে আঙ্গুল চুষবেন? বলেন? একটু ঠান্ডা মাথায় ভাবুন? নাহ, আপনি কল্পনাতেও আনতে পারছেন না তাইতো? সেই ব্যক্তিকে পেলে নিশ্চিত মার্ডার জাতীয় কিছুও করে ফেলতে পারেন, আর এটাই বাস্তবতা। আচ্ছা, আপনাদের কাছে এই সোনার বাংলাদেশটাকে কি মায়ের মত মনে হয়না বলেন? এই বাংলাদেশ তো আমাদের মা-ই নাকি? কেন এই দেশের বিরুদ্ধে কথা বললে চুপ করে থাকবেন? কেন? রক্তে কি জ্বালা ধরেনা? অনলাইন হোক আর যেখানেই হোক, যেভাবেই হোক, এই দেশের ভাবমূর্তিই তো নষ্ট হচ্ছে নাকি?

তাই সবাইকে অনুরোধ করছি, যে যার স্থান থেকে প্রতিবাদ করুন, ভদ্র ভাবে, যেন অন্য দেশের মানুষও বুঝতে পারে যে ভারত বা পাকিস্তানের মত দেশের ইউটিউবাররা কতটা জঘন্য।

আমরা মুখে বললেই হবেনা যে আমরা বাংলাদেশকে ভালোবাসি। কাজে করে দেখাতে হবে। আমাদেরকে কেন ওয়ান ম্যান আর্মি হতে হবে? ষোল কোটি বাংলাদেশীই হবে দেশের জন্য নিবেদিত প্রাণ। তাই বলছি,

যত পারুন ভিডিওটি শেয়ার করুন, ভাইরাল করুন, আর নিজেরাও নিজেদের প্রতিবাদী কন্ঠের আওয়াজ তুলুন।

একই রকম আরো কিছু ফুটপ্রিন্ট

“ঈদে আপনার ভ্রমণ কতটুকু নিরাপদ হচ্ছে তার দায়িত্ব আপনার হাতে”

Rajib Rudra

“ ইউটিউবে ” অজ্ঞ আর মূর্খ নির্মাতাদের হিড়িক

Rajib Rudra

বাংলাদেশে শিল্প বিপ্লব !! Shipbuilding in BANGLADESH, massive change of ECONOMY !!

Ashraful Kabir

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

Privacy & Cookies Policy