• Home
  • খেলাধূলা
  • জিমে ব্যায়াম করা জরুরী কিন্তু কিভাবে শুরু করা উচিৎ?
খেলাধূলা

জিমে ব্যায়াম করা জরুরী কিন্তু কিভাবে শুরু করা উচিৎ?

বাস্তবে ব্যায়াম বলতে শারীরিক পরিশ্রমকেই বুঝি্ যা হতে পারে বাসায় অথবা জিমে । বাসাতে ব্যায়াম করাটা একটু কঠিন কারন প্রতিটি জিনিসের একটি পরিবেশ লাগে, আর সে পরিবেশ হতে পারে জিমে । জিমে ব্যায়াম করার জন্য আপনাকে কয়েকটি জিনিস মেনে চলতে হবে। প্রথমতঃ ওয়ার্ম আপ (শরীরকে গরম করা) যা আপনার অতি জরুরী একটি বিষয়। ব্যায়ামের শুরুটা হওয়া উচিৎ খুবই হালকা ব্যায়াম। যেমন সাইক্লিং বা ওয়াকিং বা রানিং বেশী জোড়ে নয় অথবা উঠা বসার মত ব্যায়াম। আমি আপনাকে প্রথমে পুশ আপ বা বুক ডন করতে বলব না কারনে হঠাৎ বুকডন করলে আপনার ঘাড়ে ব্যাথা হতে পারে অথবা কাঁধে ব্যাথা হতে পারে অথবা হাত মচকাতে পারে যার প্রমান আমি নিজেই যদিও আমার বয়স একটু বেশী। বিশেষ করে ফ্লোরে বুক ডন বা পুশ আপ পরে করলেও চলবে আগে ওজন কমান । আসলে জিমে ব্যায়ামের জন্য উপযুক্ত বয়স হচ্ছে ১৮ থেকে ৪০ । তবে এর বেশী বয়সে ক্ষেত্রে রুটিন মাফিক ব্যায়াম করতে পারেন।

ওজন কমাতে হলে আপনাকে দৌড়াতে হবে সেটা রানিং মেশিন দিয়েও হতে পারে অথবা পার্কেও হতে পারে। দড়ি লাফ ও দিতে পারেন । ব্যায়াম করার জন্য সবচেয়ে ভাল সময় হচ্ছে সকাল তবে যারা সকালে ঘুম থেকে উঠতে পারেন  না অথবা অফিস করেন তাদের জন্য সবচেয়ে ভাল সময় হচ্ছে সন্ধ্যা যদিও সারাদিন কাজ করে অনেক ক্লান্ত লাগে, কোন কিছু অতিরিক্ত কাজ করাটা অনেক কঠিন মনে হয়। কিন্তু ইচ্ছা থাকলে সবই সম্ভব।

আপনি জিম এ যেতে পারেন কোন সমস্যা নেই কিন্তু প্রথমে গিয়েই ভারী কোন ওজন নিবেন না তাতে হিতে বিপরীত হতে পারে । সবসময় ইন্সট্রাক্টরের রুটিন অনুযায়ী ব্যায়াম করবেন। আপনি জিমে গেলে দেখবেন খুব ভাল ফিগার, স্লিম বডি এবং খুব ভাল বাইসেপ যাকে আমরা বাহির হতে দেখি হাতের পেশি শক্তি হিসাবে কিন্তু আপনি কি জানেন তার এই বডি বানাতে কত সময় লাগেছে । সেকি প্রতিদিন মাংশ খায় কিনা প্রশ্ন করে দেখতে পারেন । আসলে সে দেখবেন মাংশ কম খায় আর ফলমূল এবং সবজী বেশী খায়। ভাত কম খায় আর সবজী বেশী খায়। এভাবে অনেক রুটিন মেনে চলে বিধায় তার ফিটনেস অনেক সুন্দর।

আপনি প্রথমে ৩ মাস তিন কেজী ওয়েট নিতে পারেন আপনার চেষ্ট, বাইসেপ এবং ট্রাইসেপের জন্য। কিন্তু আপনি মনে রাখবেন বাংলাদেশের বেশীর ভাগ জিম এ ইন্সট্রাক্টররা ঠিক মত দেখে না যদিও সব জায়গায় একই রকম হয় না। তবে আপনাকে তাদের বেশী বেশী প্রশ্ন করতে হবে। কোন ব্যায়াম কিভাবে করতে হবে তা ইন্সট্রাক্টররা দেখিয়ে দিবেন এবং সেটা ওনাদের দ্বায়িত্ব  । আপনাকে যে রুটিন তারা দিবেন ঠিক সেই ব্যায়ামটি আপনাকে করতে হবে। অন্যেরা কি ব্যায়াম করে তা আপনি শুধু দেখতে পারেন কিন্তু ভুলেও করবেন না । করলেই আপনার উপর বিপদ নেমে আসতে পারে, এমনটি আপনার রগ ছিঁড়ে বা হাড়গোড় ভেঙে হসপিটালে ভর্তি হতে পারেন। তাহলে আপনার জিমে গিয়ে লাভ না হয়ে বরং ক্ষতি হলো। আর এর জন্য আপনিই দ্বায়ি ।

মানুষের অনেক ধরনের টার্গেট থাকে যেমন কেউ মনে করেন আমি বডি বিল্ডার হব আবার কেউ মনে করেন আমি সুন্দর টেষ্ট বানিয়ে বন্ধুদের দেখাব আর কেউ মনে করেন আমি মাস্তানী করব। শক্তি হলেই শক্তির প্রয়োগ করতে হবে এটা ঠিক নয় তাছাড়াও সবসবয় মনে রাখবেন পেশী শক্তিই আপনার আসল শক্তি না। আসল শক্তি হলো বুদ্ধি করে ঠান্ডা মাথায় কাজ করা এবং বলা।

যাদের বয়স কম তাদের বলি হয়ত শুনতে ভাল লাগবে না তা হচ্ছে আপনি জিমে যাবেন ব্যায়াম করবেন ঠিক আছে কোন সমস্যা নাই কিন্তু পড়াশুনাটা ভাল মত করুন। কারন জিমে যাওয়ার সময় আপনি জীবনে অনেক পাবেন কিন্তু পড়াশুনা করার সময় আপনি হয়ত আর নাও পেতে পারেন।

যাহোক মানুষ ভুল করে এবং সেই ভুল হতে শিক্ষা গ্রহন করে আবার ব্যাস্ত সময় পার করে এটাই মানুষের জীবনের ইতিহাস।  জিমে ব্যায়াম করতে হলে আপনাকে কমপক্ষে ৩০ মিনিট হালকা ব্যায়াম করতে হবে । আপনাকে কিছু জিনিস সঙ্গে রাখতে হবে তা হলো একটি বড় বা মাঝারী সাইজের বোতলে এক বোতল বিশুদ্ধ খাবার পানি, একটি বড় তোয়ালা এবং একটি বা দুইটি টি  শার্ট কেন তা বলি, একটি টি শার্ট  আপনি পরে ব্যায়াম করবেন আর একটি আপনি ব্যায়ামের পর পড়ে বাসায় ফিরে আসবেন কারন  প্রথম ৩০ মিনিট ব্যায়াম করার পর আপনার শরীরে ঘাম হবে এর তার জন্যই দুটি টি শার্ট এবং একটি হ্যান্ড গ্লাপস থাকলে ভাল হয় যাতে আপনি যে ওজন তুলবেন সেই  হ্যান্ড গ্লাপসটি আপনার সাপোর্ট হিসাবে ব্যাবহার হতে পারে।

যাদের পেট বড় অথ্যাৎ চর্বি জমেছে তাদের জন্য কিছু পেটের ব্যায়াম করতে পারেন। যেমন সাইক্লিং, জগিং, ফি হ্যান্ডেএক্সারসাইজ মানে সহজ ব্যামগুলো করতে পারেন। জিমে আপনি আপনার বন্ধুর সাথে পাল্লা দিয়ে ব্যায়াম করার দরকার নাই । একজন হয়ত বললো কিভাই শুধু সাইক্লিং আর জগিং ই করবেন আর কিছু করবেন না । আপনি উত্তরে শুধু হাসবেন  এবং বলবেন সময় হলেই করব কোন রিয়াক্ট করবেন না বা তাদের মত ব্যায়াম করতে যাওয়ার দরকার নাই।

একটি কথা খুব দরকারী যে, যাদের শরীর গঠনের জন্য ব্যায়াম করছেন এবং টার্গেট হচ্ছে বডি বিল্টার হবেন তাদের কিন্তু বেশী খেতে হবে শুধু সবজি খেলে পেশী হবে তবে সেই রকম দৃশ্যমান হবে না যেটা মানুষ চায় । পরিশেষে বলতে চাই আপনার জিমে যেতেই হবে এমন কোন কথা নাই তবে চাইলে আপনি হয়ত একদিন বড়  বডিবিল্ডার হতে ও পারেন । তবে খুব সাবধান আমি বারবার বলছি কারো সাহায্য নিয়ে ব্যায়াম করবেন না যা অনেকেই করে যেমন ওয়েটটি তুলতে পারছেন না আপনি ডাক দিলেন এই ভাই একটু ধরেন তো,  আপনি যতটুকু ওজন নিতে পারবেন বলে মনে করেন ঠিক ততটুকু নিবেন তার বেশী নয়।

একই রকম আরো কিছু ফুটপ্রিন্ট

মাশরাফির ফেরার ম্যাচে জয় পাবে কি বাংলাদেশ?

Musfiqur Rahman

ভারতীয় ক্রিকেটের দুই নায়ক

বাংলাদেশ ক্রিকেট ও সাব্বির রহমান

Login

Do not have an account ? Register here
X

Register

%d bloggers like this: