Now Reading
শুরুটা ভালো করেও ২২১ রানে পিছিয়ে বাংলাদেশ



শুরুটা ভালো করেও ২২১ রানে পিছিয়ে বাংলাদেশ

বাংলাদেশ ও নিউজিল্যান্ড দ্বিতীয় টেস্ট ম্যাচে বৃষ্টির কারনে প্রথম দুইদিন খেলাই হয়নি। তারপর খেলা শুরু হলেও বাংলাদেশর শুরুটা ভালই ছিল। তামিম আর সাদমান শুরুটা খুব ভালই করেছিল। কিন্তু ধরে রাখতে পারেনি।

অপরদিকে ওয়েলিংটনের কঠিন কন্ডিশনেও রান উৎসব করেছে নিউজিল্যান্ড, ৬ উইকেটে ৪৩২ রান করে প্রথম ইনিংস ঘোষণা করেছে কিউইরা।

২২১ রানে পিছিয়ে থেকে দ্বিতীয় ইনিংস শুরু করা বাংলাদেশ শুরুতেই ধাক্কা খেয়েছে প্রথম ইনিংসে ৭৪ রান করা তামিম ইকবালকে হারিয়ে। ট্রেন্ট বোল্টের ভেতরে ঢোকা বলটা রক্ষণাত্মক ভঙ্গিতে খেলতে চেয়েছিলেন বাংলাদেশ ওপেনার। ব্যাট আর প্যাডের ফাঁক গলে সেটি চলে আসে স্টাম্পে। দ্বিতীয় ইনিংসে ৪ রানের বেশি স্কোরবোর্ডে যোগ করতে পারেননি তামিম। ফিরে গেছেন ১০ রান করা মুমিনুল হকও। প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত বাংলাদেশের স্কোর ২ উইকেটে ২০।
৮ রানে ২ উইকেট ফেলে দিয়ে কাল বাংলাদেশের বোলাররা যেভাবে শুরু করেছিলেন, মনে হচ্ছিল আজ কিউই ব্যাটসম্যানদের কঠিন পরীক্ষাই নেবেন তাঁরা। তা আর নিতে পারলেন কোথায়! কঠিন এ কন্ডিশনেও রান উৎসব করেছেন নিউজিল্যান্ডের ব্যাটসম্যানরা। রস টেলর আর কেন উইলিয়ামসনের তৃতীয় উইকেট জুটি যোগ করেছে ১৭২ রান। তাইজুল ইসলামের হাতে ফিরতি ক্যাচ দিয়ে উইলিয়ামসন ৭৪ রানে ফিরলেও টেলর শুধু সেঞ্চুরিই করেননি, থেমেছেন একেবারে ডাবল সেঞ্চুরি করে। টেলর অবশ্য থামতে পারতেন ২০ রানেই। আবু জায়েদের করা ১৫তম ওভারে দুবার সুযোগ দিয়েছিলেন, কিন্তু সুযোগ দুটি কাজে লাগাতে পারেননি সাদমান ইসলাম কিংবা মাহমুদউল্লাহ। ২০ রানে জীবন পাওয়া টেলর থেমেছেন আরেকটি ‘০’ যোগ করে অর্থাৎ ঠিক ২০০ করে! চতুর্থ উইকেটে হেনরি নিকলসকে নিয়ে চতুর্থ উইকেট টেলর জুটিতে যোগ করেছেন ২১৬ রান। তাইজুলের আরেক শিকার হওয়ার আগে নিকোলসও করেছেন সেঞ্চুরি।
৩ উইকেটে ৩৯৬ থেকে ৬ উইকেটে ৪৩২—৩৬ রানের মধ্যে ৩ উইকেট পড়লে নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক আর সুযোগ দেননি বাংলাদেশের বোলারদের, ৬ উইকেটে ৪৩২ করে ঘোষণা করে দেন ইনিংস। তামিম কাল ভবিষ্যদ্বাণী করেছেন, ‘বৃষ্টি না হলে এই টেস্টে ফল আসবেই।’

About The Author
MD BILLAL HOSSAIN
MD BILLAL HOSSAIN
Comments
Leave a response

You must log in to post a comment