Now Reading
সিন সিটি বা পাপের শহর



সিন সিটি বা পাপের শহর

আধুনিক পর্যটন ব্যবসায় অন্যতম বিখ্যাত একটি ট্যাগ লাইন হচ্ছে “what happens in Vegas, stays in Vegas”, এই লাইনটি একটি স্লোগান, হলিউডের অনেক বিখ্যাত সিনেমা কিংবা সিরিজেও একাধিকবার ব্যবহার করা হয়েছে এই লাইনটি। ‘সিন সিটি’ বা পাপের শহর নামে পরিচিত এই লাস ভেগাসে শুধুমাত্র এই একটি লাইনের কারণে লক্ষ লক্ষ ভ্রমনপিপাসু মানুষ ছুটে এসেছে। এ শহরের বাতসে স্বাধীনতার যে স্বাদটা পাওয়া যায়, তা অন্য কোথাও সম্ভব না। এই স্বাধীনতাটা পর্যটক ও লাস ভেগাসের মধ্যে টানের প্রধান কারণ হিসেবে ধরা হয়। নিজের বাড়ি বা শহরে অনেক কিছু চাইলেও করা সম্ভব হয় না। কিন্তু এই শহরে এসে মানুষ সেই রূপ ধারণ করতে পারে, যা নিজের শহরে চাইলেও পারে না। এই শহরের মানুষ সবকিছুতে স্বাধীনতার স্বাদ খুঁজে পায়, যা সে নিজের শহরে বা বাড়িতে পায় না। এ জন্য পর্যটকরা এই শহরকে পর্যটনের অন্যতম স্থান হিসেবে মনে করেন।

লাস ভেগাসঃ নেভাডা অঙ্গরাজ্যের সবচেয়ে ঘনবসতিপূর্ণ একটি শহর, যা যুক্তরাষ্ট্রের ২৮ তম ঘনবসতির শহর, যার নাম হচ্ছে লাস ভেগাস যা সংক্ষেপে ভেগাস নামেও সমানভাবে পরিচিত। এটি আন্তর্জাতিক ভাবে খ্যাত একটি শহর, এই রিসোর্ট নগরী বিখ্যাত হওয়ার মূল কারণ হচ্ছে এখানে জুয়ার আসর, কেনাকাটার সুবিধা, বহুমুখী বিনোদন ও নৈশ প্রমোদের বিশাল সমাহার। যা আপনাকে এক অন্য জগতের ডুবে যেতে সাহায্য করবে। বলতে গেলে অর্থনৈতিক, বাণিজ্যিক ও সংস্কৃতির কেন্দ্র পুরো লাস ভেগাস উপত্যকাটি নেভাডা রাজ্যের। এই শহরের মানুষ বিশ্বের বিনোদনের রাজধানী হিসেবে তারা নিজেরাই নিজেদেরকে দাবী করেন।
এই শহরটি জুয়ার আসরের জন্য বিখ্যাত একটি শহর। যেখানে লোকজন যেকোনো বিষয় নিয়ে বাজি ধরে বসে থাকে। লাস ভেগাস হাসপাতালের বেশ কিছু কর্মী কে ১৯৮০ সালে চাকরী থেকে বাদ দিতে হয়েছিল রুগীকে নিয়ে বাজি ধরার কারণে। কারণ কোন রুগী কখন মারা যাবে, এই বিষয় নিয়েও তারা বাজি ধরতেন। এমন কি একজন নার্স একদিন এক রুগীকে হত্যা পর্যন্ত করেছিল শুধুমাত্র বাজিতে জিতার জন্য। প্রাপ্তবয়স্কদের বিনোদনের নানাবিধ সুযোগ ও উপায়ের ব্যবস্থা এই শহরকে পাপের শহর বা সিন সিটি হিসাবে উপাদি দিয়েছে। কিন্তু এই পাপের নগরীতেও কিন্তু পতিতাবৃত্তি অবৈধ। অবাক হলেও এটাই সত্যি। আর এই সত্যটা এখনো অনেকের কাছে অজনা।
পৃথিবীর প্রায় দেশে জনসম্মুখে মাতলামি করা অপরাধ হিসাবে বিবেচিত করা হয়। যুক্তরাষ্ট্রের অনেক রাজ্যেও জনসম্মুখে মাতলামি করা অপরাধ। কিন্তু অবাক হলেও সত্যি যে নেভাডায় প্রকাশ্যে মাতলামি করা কোন অপরাধ নয়। মদ্যপান করা, জনসম্মুখে মাতাল হয়ে ঘুরে বেড়ানো এসমস্ত কাজ নেভাডা রাজ্যের আইনে কোন প্রকার দণ্ডনীয় অপরাধের আওতায় পড়েনা। এখন আপনার মনে প্রশ্ন আসতে পারে কিভাবে এতো মাতালের মধ্যে শহরের শান্তি শৃঙ্খলা বজায় থাকে? মদ্যপান করে কেউ যেনে অন্যের অসুবিধার কারণ না হয়, সেক্ষেত্রে নিয়ম করে রাখছে এই নগরীতে। কেউ যদি মদপান করে জনসম্মুক্ষে মুত্রত্যাগ বা অন্যের সমস্যা হয় এ সমস্ত কাজ করে তাহলে সেক্ষেত্রে তাকে শাস্তির আওতায় আনা হবে। মদ্যপান করে মাতলামি পর্যন্ত করতে পারবে, কিন্তু সে মাতলামি যেন অন্যের ক্ষতি কিংবা শান্তির ব্যাঘাত না ঘটে সেদিকেও লক্ষ্য রাখতে হবে।
লাস ভেগাসের প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের তুলনা হয় না। লাস ভেগাস নিয়ে লিখে শেষ করা সম্ভব না। অত্যন্ত মনোরম এবং মনোমুগ্ধকর একটি জায়গা। যা আপনাকে প্রতিটা কদমে স্বস্তির একটা নিঃশ্বাস নিতে সাহায্য করবে। কারণ লাস ভেগাস একটি মুগ্ধতার নাম, যার প্রতিটা কদমে কদমে রয়েছে সৌন্দর্যের লীলাভূমি, স্বস্তির অনুভূতি।

About The Author
Md Meheraj
Md Meheraj
Comments
Leave a response

You must log in to post a comme