Now Reading
আওয়ামী লীগ বনাম বিএনপি



আওয়ামী লীগ বনাম বিএনপি

আমরা সবাই আওয়ামী লীগের কথা বিএনপি কথা জানি তারাই বাংলাদেশের প্রধান দল ।

যদিও বিএনপি এখন সংসদে নেই, সংসদে নেই তারপরও তাদের প্রভাব আছে আমাদের দেশে ।
সবাই বলে আওয়ামী লীগ টাকা খাইতেছে , টাকা নিয়ে পালিয়ে যাবে , দেশ ভারতের কাছে বিক্রয় করে দিয়েছে , জোর করে ক্ষমতায় আছে ।

আমি তাদের কিছু কথা বলতে চাই , আওয়ামী লীগ টাকা খাইতেছে ভোট দেওয়ার সময় তোমরা সবার আগে টাকা খেতে যাও । আওয়ামী লীগ টাকা খায় বিএনপি খায় নাই ।তারা তো ৫ বার প্রথম স্থান অর্জন করেছে দুর্নীতিতে । টাকা নিয়ে কে পালিয়ে গেছে আমরা ভাল করে জানি আমার ভাই তোমার ভাই তারেক ভাই তারেক ভাই ।আওয়ামী লীগ দেশ বিক্রয় করে দিয়েছে ভারতের কাছে , কি বিক্রয় করেছে শুনি প্রমান দাও । এমন হলে বিএনপি পাকিস্তানের কাছে বিক্রয় করেছিলো মনে হয় ।জোর করে ক্ষমতায় আছে কোন দিক দিয়ে ……? জাতীয় নির্বাচনের বিএনপি অংশ গ্রহন করে নাই কেন ……..? করলে হয়তো তারাই ক্ষমতায় থাকতো । আওয়ামী লীগ দেশের জন্য  অনেক কিছু করতেছে কিন্তু এটা আমরা দেখি না ।বিষয়টা এমন হয়ে দাড়িয়েছে, যে কখনো ক্রিকেট বল হাতে ধরে নাই সে মাশরাফিকে নিয়ে কমেন্ট করে, এই বলটা এই ভাবে না করে ঔ ভাবে করা দরকার ছিলো ।

আওয়ামী লীগ নিয়ে খারাপ মন্তব্য করার আগে বুকে হাত দিয়ে ভাবেন । বিএনপি দেশের জন্য কতটুকু করছে , আওয়ামী লীগ কি করতেছে । না জেনে খারাপ মন্তব্য করা ঠিক না । যে সামনে থাকে সবাই তাকেই দেখে তার দোষ খুঁজবে এটা মাথায় রাখা উচিত । আমরা এখন পাকিস্তান থেকে উন্নত দেশ । ইনশাআল্লাহ কিছু বছর পর ভারতকেও ছাড়িয়ে যাবো ।

যে কারনে বিএনপি আজ একটি পঙ্গু দল

এক. বিএনপি সংসদে নেই। ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত নির্বাচন তারা বর্জন করে। দুই. বিএনপি আন্দোলনে নেই। ২০১৫ সালের লাগাতার অবরোধ কর্মসূচির পর দলটি কোনো আন্দোলন গড়তে পারেনি বা গড়ার চেষ্টা করেনি। তিন. বিএনপির নেতৃত্ব দল গোছানোর কাজটিও করতে পারছে না

চার. ক্ষমতায় থাকার সময় দেশের উন্নতি করতে ব্যর্থ ।

বিএনপি কি কোনো রাজনৈতিক দল যে তারা বাংলাদেশের কোনো জায়গায় থাকবে? শিকড় এর কারনেই বৃক্ষ বুক ফুলিয়ে বেড়ে চলে কিন্তু তাদের শিকড় তো নেই! বিএনপি এখন সব কূল হারাতে বসেছে। সংলাপ, নির্বাচন কিংবা আন্দোলন কোনোটাই আর বিএনপি টেনে নিয়ে যেতে পারবে বলে মনে হয় না। এখন এমন একটা ব্যর্থ দলকে কে ক্ষমতায় চাইবে । একটা ভাল নির্বাচন মানেই ‘গনতন্ত্র’ প্রতিষ্ঠা বা দেশ স্বর্গে পরিনত হওয়া না। ২০০১-এর নির্বাচিত বিএনপির কলংকিত শাসনকাল তার প্রমান। সংখ্যালঘু ও বিরোধী কর্মিদের হত্যা, লুট, ধর্ষন, অগ্নিসংযোগ, ২১ আগস্ট সহ শীর্ষ আওয়ামী নেতাদের হত্যা, ৫ বার দুর্নীতির বিশ্বশিরোপা, রাজাকার মন্ত্রী, বাংলা ভাই/আব্দুর রহমানদের জঙ্গিবাদিতা, অশ্লিল বাংলা সিনেমার মত ঘটনাগুলো কোন গনতন্ত্রের মধ্যে পড়ে?? কাজেই অন্যের সমালোচনার আগে নিজেদের সংশোধন করেন।বিএনপি যখন কোথাও নেই তাহলে বিএনপিকে নিয়ে লিখে লাভ কি বরং আওয়ামী লীগকে নিয়ে লিখুন। আওয়ামী লীগ যখন সবখানেই আছে তাহলে বাংলাদেশের সবখানের ভালোমন্দের দায় দায়িত্ব এখন আওয়ামী লীগের। আওয়ামী লীগের ভালোকাজের সুনাম করেন। সরকার আরও কিভাবে দেশের ভালো করতে পারে সেটা লেখুন। তা না লিখে একটা মৃতপ্রায় দলকে টেনে টেনে জীবন্ত করার কি দরকার।

এখন বিএনপি কে বাচাঁবে ….?

বিএনপিকে এখন আওয়ামীলীগকেই বাঁচাতে হবে। যে দলটি সবসময় আওয়ামীলীগের পিঠে ছুরি মেরেছে (সামনে থেকে মারার সাহস ও ক্ষমতা কোনটাই নাই ) তাকে কেন আওয়ামীলীগ বাঁচাতে যাবে ? কারন দেশের দেশের স্বার্থেই বিএনপিকে আওয়ামী লীগ  বাঁচাবে । বাংলাদেশের কথা চিন্তা করে এমন একটি মাএ দল সেটি হল আওয়ামী লীগ।

জাতিসংঘ অর্থনৈতিক ও সামাজিক সূচকের ভিত্তিতে বিশ্বের দেশগুলোকে তিন ভাগে ভাগ করা হয়। যেমন, স্বল্পোন্নত দেশ ,
উন্নয়নশীল ও উন্নত দেশ। ১৯৭৫ সাল থেকে বাংলাদেশ এলডিসির তালিকায় রয়েছে। এবার সেই তালিকা আমরা উন্নতি করেছি।
চলতি অর্থবছরে জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৭ দশমিক ০৫ শতাংশ অর্জিত হবে বলে জানিয়েছে পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়। একই সঙ্গে ওই সময়ে মাথাপিছু
আয় বেড়ে দাঁড়াবে ১৪৬৬ মার্কিন ডলার। এ পরিস্থিতিতে ২০১৮ সালেই উন্নয়নশীল দেশে উন্নীত হওয়ার আশা করছে সরকার। জাতিসংঘ বলেছে, ১৯৮০ থেকে ২০১৪ সালের মধ্যে মধ্যম মানের এইচডিআই সূচকে বাংলাদেশের উন্নতি ইতিবাচক।  তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন, গত ৮ বছরের আইটি খাতে রফতানি হয়েছে ৭০০ মিলিয়ন ডলার। ২০১৮ সাল নাগাদ আমরা আইসিটি সেক্টর থেকে ১ বিলিয়ন ডলার রফতানি করব এবং ২০২১ সাল নাগাদ রফতানি করব ৫ বিলিয়ন ডলার। এজন্য প্রশিক্ষণ দিয়ে দক্ষ জনশক্তি তৈরি করে তথ্য-প্রযুক্তি খাতে ২০ লক্ষ তরুণ-তরুণীর কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা হবে।

শেষ কথা দেশ উন্নত হচ্ছে বাধার সৃষ্টি করবেন না । বিএনপি তো চাইবে ক্ষমতায় গিয়ে দেশ আবার লুট করতে ।

About The Author
Syed Asraful
নিজে সম্পর্কে কি বলবো , আমি ছোট একটা মানুষ এতো বড় কিছু করতে পারি নাই যে আমার আলাদা পরিচয় হবে । তবে ইনশাআল্লাহ একদিন কিছু একটা হব।
Comments
Leave a response

You must log in to post a comment