খেলাধূলা

ক্যাপ্টেন্সিতে ব্যার্থ ক্রিকেট বিশ্বের এমন তিন জন গ্রেট ব্যাটসম্যান

শচীন রমেশ টেন্ডুলকার

শুধু ব্যাট হাতেই দূর্দান্ত ছিলেন না তিনি একই সাথে ক্রিকেটকে যে “জ্যান্টেলম্যান গেম” বলা হয় সেটাও তার ব্যক্তিত্বে দারুনভাবে ফুটে উঠেছে।ভারতের ক্রিকেটারদের মধ্যে টেন্ডুলকারই একমাত্র ক্রিকেটার যার ব্যক্তিত্ব দেখে আমি সত্যিই মুগ্ধ হই।টেন্ডুলকার ২০০ টেস্টে ৫৩.৭৯ গড়ে করেছেন ১৫৯২১ রান,৪৬৩ ওয়ানডেতে ৪৪.৮৩ গড়ে করেছেন ১৮৪২৬ রান।আন্তর্জাতিক টি টুয়েন্টি ক্যারিয়ার অবশ্য খুব বেশি লম্বা নয় টেন্ডুলকারের।মাত্র ১ টি টি টুয়েন্টি খেলে করেছেন ১০ রান।মানুষের হৃদয় জয় করেছে তার ব্যাটিং দিয়ে ! শুধু তাই না ব্যাটিং এর সব রেকডও নিজেই করে নিয়েছেন । তাকে কোন ব্যাটসম্যান ছাড়িয়ে যেতে পারবে কিনা এ নিয়ে আছে অনেক বিতর্ক ! টেস্ট ও ওয়ানডে তে সেঞ্চুরীর সেঞ্চুরী করা একমাত্র এ ব্যাটসম্যান দুই দফা হয়েছিলেন ভারতের ক্যাপ্টেন ! প্রথমবার ১৯৯৬ সালে সেবার দায়িত্বের মেয়াদ ছিল খুব অল্প সময়ের জন্য , আর দ্বিতীয়বার নিজেই সরে দাড়িয়েছিলেন ক্যাপ্টেন্সি থেকে !এই দুইবার ই শচীনকে বিব্রত করেছিল তার দলের খারাপ পার্ফোমেন্স !শচীনের ক্যাপ্টেন্সিতে ভারত ২৫ টি টেস্ট এ মাত্র ৪ টি টেস্ট এ জয় লাভ করেছিল ।আর শচীনের অধীনে রঙ্গিন জার্সিতেও ভারত ৭৩ টি ওয়ানডে তে মাত্র ২৩ টি তে জয় লাভ করেছিল ।

ব্রায়ান লারা

ক্রিকেট দুনিয়ার আর এক  নাম   ব্রায়ান লারা । টেস্ট এ এক মাত্র খেলোয়ার হিসেবে এক ইংনিস এ ৪০০ রান করার এক অবিশ্বাস রেকর্ড করেছেন তিনি ক্রিকেট বিশ্বে অনেকে তাকে ক্রিকেটের বড় পুত্র বলে অনন্য রের্কডের মালিক এই প্লেয়ার।টেস্ট সর্বোচ্চ রানের ইনিংসের মালিক এই ব্রয়ান লারা ।১৩১ টেস্টে ৫২.৮৯ এভারেজ ১১৯৫৩ রান করছেন এই লিজেন্ড।ঝুলিতে আছে ৩৪ সেন্চুরি ও ৪৮ টি অর্ধশতক ।ওডিআইতে ও কার্যকর এই লিজেন্ড ২৯৯ ওডিআইতে ১০৪০৫ রান করেছেন ৪০.৭১ এভারেজ,ওডিআইতে ১৯ সেন্চুরি ও ৬৩ অর্ধশতক আছে লারার ।এছাড়াও ১ম শ্রেনির ক্রিকেটে তার ৫০১ রানের ইনিংস ও ইতিহাস সেরা ।মূলত একজন ব্যাটসম্যান হলেও ওডিআইতে তার আছে ৪ উইকেট । সারাজিবনে ওডিআইতে মাত্র ৪৯ বল করেই ৪ উইকেট পেয়েছে। ব্যাট বলের লড়াইয়ে অস্ট্রেলিয়াকে সবচেয়ে পছন্দ লারার।  অস্ট্রেলিয়ার সাথে তার এভারেজ ৬৫+  ।সাফল্যময় হলেও ক্যাপ্টেন্সিতে শচীনের মতই তিনিও ব্যার্থ ছিলেন ।তার ক্যাপ্টেন্সি তে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৪৭ টি টেস্ট ম্যাচ খেলে ! এর মধ্যে ১০ টি টেস্ট ম্যাচ জয় লাভ করে , আর ২৬ টি টেস্ট এ ম্যাচে হারের মুখ দেখতে হয় তাকে ।

ক্রিস গেইল

ব্রায়ান লারার অবসরের পর ওয়েস্ট ইন্ডিজের দায়িত্ব নেন বার্তমান বিশ্বের অন্যতম মারকুটে ব্যাটসম্যান ক্রিস গেইল।নিজের এগ্রেসিভ মনোভাব ওয়েস্ট ইন্ডিজ দলে ফিরে আনবেন সবাই এই আশায় বুক বেধেছিল। কিন্তু সেই আশায় গুড়ে বালি , গেইলের অধীনে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ৫৩ ওয়ানডেতে মাত্র ১৭ টি ওয়ানডে জয় লাভ করেছিল।আর ২০ টি টেস্ট এ ৩ জয়ের বিপরীতে হারের স্বাদ পেয়েছিলেন ৯ টিতে ।

 

একই রকম আরো কিছু ফুটপ্রিন্ট

কোহলিদের বিশাল অংকের জরি্রিমান দিচ্ছে পাকিস্তান

MD BILLAL HOSSAIN

বাংলাদেশ ক্রিকেটের জীবন্ত দুই জন কিংবদন্তী

সাউথ আফ্রিকার বিপক্ষে বাংলাদেশ ক্রিকেটের সাফল্য

Md Rafiqul Islam

This website uses cookies to improve your experience. We'll assume you're ok with this, but you can opt-out if you wish. Accept Read More

Privacy & Cookies Policy