২৫০০০ টাকার মধ্যে বেষ্ট ক্যামেরা ফোন এবং বাজেট ফোন

Now Reading
২৫০০০ টাকার মধ্যে বেষ্ট ক্যামেরা ফোন এবং বাজেট ফোন

বর্তমানে মোবাইল বাজার অস্থির একটি অবস্থা। কোন মোবাইল কিনলে ভাল হবে তা বুঝতে বুঝতে অনেকের চোখ লাল হয়ে যায় কিন্তু বুঝতে পারেনা কোন মোবাইল কিনলে ভাল হয়। তবে আপনি যদি আমার মোবাইল রিভিউ পড়েন তাহলে অনেকটা বুঝতে পারবেন কোন মোবাইল আপনার জন্য পারফেক্ট।

অনেকে মনে করেন যে কম টাকায় ভাল মোবাইল আবার অনেকে চান বেষ্ট ক্যামেরা মোবাইল আবার অনেকে চান বেষ্ট ব্যাটারী ব্যাকআপ মোবাইল। আবার অনেকে সব একসাথে চান। তবে সব একসাথে পাওয়া অনেক কঠিন না তবে দাম একটু বেশী।

আমি যে সকল মোবাইল ফোনের নাম নিচে বিস্তারিত উল্লেখ করলাম তা একমাত্র আমার  নিজস্ব মতামত এবং অনেকের মতের সাথে মিলতেও পারে আবার নাও মিলতে পারে।

বেষ্ট ক্যামেরার দিক বিবেচনা করে ভাল মানের অনেক গুলো মোবাইল ফোন আছে যেগুলো পারফরম্যান্সও অসাধারন। তবে আমি বলব শুধু ক্যামেরা না বরং ওভারঅল পারফরমেন্সের দিক দিয়ে যে ফোনগুলো ভাল সেই ফোনগুলোই কেনা উচিৎ।

প্রথমত একটি ভাল ফোন হতে পারে গ্যালাক্সি এ৫ ২০১৭ যাতে রয়েছে ৫.২ ইঞ্চির হাইডেফিনেশন  সুপার এমোলেড ডিসপ্লে  সাথে রয়েছে ১৬ মেগাপিক্সেল রেয়ার এবং ফ্রন্ট ক্যামেরা যা আপনাকে দিবে অসাধারন সব ছবি এবং ভিডিও ক্যাপচার বা তুলবার সক্ষমতা। যার দাম পড়তে পারে ২৫০০০ টাকা থেকে ২৬০০০ টাকার ভিতরে। এখানে আছে ফাষ্টার চার্জার টেকনোলজী যা ফোনটিকে দ্রুত চার্জ করাতে সাহায্য করবে। এই মোবাইলের বৈশিষ্ট হচ্ছে এটি ওয়াটার প্রুফ যা ১.৫ মিটার পানির গভীরেও  আপনি ছবি তুলতে পারবেন কোন সমস্যা ছাড়াই।

দ্বিতীয়ত এইচটিসির ভাল একটি ফোন হচ্ছে এইচটিসি ডিজায়ার ১০ প্রো যাতে আপনি পাবেন খুব উন্নতমানের ডিজাইন এবং এর পিকচার কোয়ালিটি অনেক ভাল। এতে রয়েছে ৪ জিবি র‌্যাম এবং ৬৪ জিবি ইন্টারনাল মেমরী যা আপনাকে দিবে অসাধারন পারফরম্যান্স। মোবাইলটি সব দিকদিয়েই ভাল কিন্তু দাম একটু বেশী ২৯,১০০ টাকার কাছাকাছি।

শাওমির এমআই৫এস এতে রয়েছে আল্ট্রা পিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা থাকাতে এটি ৪ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা হলেও বেশ ভাল মানের এইচডি ছবি তোলা যায়।

বর্তমানে অনেক মোবাইলের মধ্যে এন্ড্রয়েড মোবাইলই সবচেয়ে ভাল এবং জনপ্রিয় একটি মোবাইল হচ্ছে গুগলের পিক্সেল ২আই। গুগলের এই মোবাইলটি দাম বেশি প্রায় ৫০০০০ টাকার মত হলেও খুব ভাল মানের একটি ফোন। এতে রয়েছে ৬ জিবি র‌্যাম, ৬৪ বা ১২৮ জিবি ইন্টারনাল মেমরী। এর বাহিরেও এই মোবাইলের মাধ্যমে গুগল ড্রাইভেও যেকোন জিনিস রাখা যায় যা একটি অতিরিক্ত সুবিধা দিয়ে থাকে। মোবাইলের পারফরম্যান্স ছাড়াও ক্যামেরা ফিচার অসাধারণ এবং প্রোসেসরও অনেকে অনেক উন্নত।  তবে যাদের বাজেট ঘাটতি আছে তারা অন্য ব্রান্ডের মোবাইল সিলেক্ট করতে পারেন।

ক্যামেরার দিকে যদি আপনার ঝোঁক থাকে তাহলে স্যামসাং এবং সনি মোবাইলের পারফরমেন্স সবচেয়ে ভাল হবে। এর পাশাপাশি আসুসের জেনফোন সেলফিও, নোকিয়ার নতুন মোবাইল নোকিয়া ৬/নোকিয়া ৮ যা প্রথম  লঞ্চ হয়েছে লন্ডনে এবং এই মোবাইলগুলো খারাপ মোবাইল না। বলতে পারেন বেষ্ট ক্যামেরা মোবাইল ফোন এভার। এন্ড্রয়েড সম্বলিত নকিয়া বা আসুস এর জেনফোন সেলফি মোবাইলের দাম পড়বে প্রায় ২০০০০ টাকা। সেলফি তুলতে যারা আগ্রহি তারা তারা অপ্পো এফ ৫ বা আসুসের জেনফোন সেলফি ফোনটি কিনতে পারেন।  অপ্পো এফ ৫ এর দাম পড়বে ৩০০০০ টাকা অপরদিকে জেনফোন সেলফির দাম পড়বে ২০০০০ টাকার কাছাকাছি।

মোবাইলে র‌্যাম যত বেশী থাকে  পারফরম্যান্স তত বেশী ভাল হয়ে থাকে। বর্তমান বাজারে ৩ জিবি র‌্যাম এর ক্যামেরা মোবাইল কিনলেই ভাল হবে।

বর্তমানে চায়না মোবাইল ফোন ভাল পারফরম্যান্স দেখা যায় এবং যাদের বাজেট কম মোবাইল কেনার ইচ্ছা আছে তারা শাওমি এবং হুয়াওয়ে এবং অপ্পো ব্রান্ডে মোবাইল চয়েজ করতে পারেন। হুয়াওয়ের জিআর ৫ কিনলে অনেককিছু গিফট পাওয়ার সম্ভবনা আছে। ৪ জিবি র‌্যাম এবং ৬৪ জিবি সাইজের মেমরীরর এই ক্যামেরা ফোনটিও অনেক ভাল ফোন কারন এতে রয়েছে ডুয়াল ক্যামেরা । হুয়াওয়ের জিআর ৫ এর দাম ১৮,৫৯০ থেকে ২২,০০০ টাকার মধ্যে যা অন্যান্য মোবাইলের তুলনায় কম।

হুয়াওয়ের চার ফোনের মোবাইল যা হুয়াওয়ের নোভা ২  ফোনটি একটি অনেক ভাল মানের ফোন হবে। এতে রয়েছে এন্ড্রয়েড নুগাট যা এন্ড্রয়েডের সর্বশেষ ভার্ষন সংযোজন করা আছে। এতে আছে ৪ জিবি র‌্যাম এবং ৬৪ জিবি রম বা ইন্টারনাল মেমরী এবং দাম পড়বে বাংলাদেশী টাকায় ২৬,৯৯০ টাকা মাত্র যা আপনি ঘরে বসেই পিকাবো সাইট থেকে অর্ডার করতে পারবেন। এর ব্যাক বা রিয়ার ক্যামেরা রেজুলেশন দেওয়া আছে ১৬+২ মেগাপিক্সেল এবং ফ্রন্ট ক্যামেরা দেওয়া আছে ১৩ +২ মেগা পিক্সেল যা দিয়ে অসাধারন ডিএইচএল মানের ছবি তোলা যায়। এই মোবাইলের ডিজাইন অসাধারন এবং এই ফোনটি অনেক স্লিম এবং এটার সাইজ ৫.৯ ইঞ্চি যা অনেক বড় মাপের একটি ফোন।

শাওমির রিদমি ফোর এক্স ৪ জিবি র‌্যাম এর সাথে ইন্টারনাল মেমরী পাবেন ৬৪ জিবি যা যতেষ্ট ভাল পারফরম্যান্স দিবে। কারন অনেকেরই মোবাইলে জায়গা নিয়ে আপত্তি আছে যে মোবাইলগুলো আগে কেনা হয়েছিল তা হয়ত যতেষ্ট স্পেস পাওয়া যায় না যার কারনে স্লো হয়ে যায় কিন্তু এই মোবাইলে সে সম্ভবনা নাই। তাছাড়াও ৪ জিবি র‌্যাম থাকার কারনে পারফরম্যান্স অনেক ভাল হবে। এই মোবাইলের  দামও কম ১৫৫০০ টাকা যা অনেকটা হাতের নাগালে আছে।

বিশ্বের আকাশছোঁয়া দামের সেরা দশ মোবাইল!

Now Reading
বিশ্বের আকাশছোঁয়া দামের সেরা দশ মোবাইল!

মোবাইল সেট বব্যহার করেননা এমন মানুষের সংখ্যা খুবই কম।কেউ কম দামি আবার কেউবা বেশি দামি মোবাইল সেট ব্যবহার করে থাকেন।কিন্তু বিশ্বে এমনও কিছু মোবাইল আছে যার দাম শুনা মাত্রই আপনার চোখ কোপালে উঠেছে বলে মনে হবে।ফোন গুলো এত্তবেশি দামি যে,যে জন্য সবার পক্ষে ক্রয় করা সম্ভব না।আবার অনেকের ক্রয় করার ক্ষমতা থাকলেও করেননা। তবে পৃথিবীতে এমনও কিছু ব্যক্তি আছে যারা সখের বশে বিশ্বের সর্বোচ্চ দামি সেট কিনেন এবং অনেক যত্ন সহকারে ব্যবহার করে থাকেন।

 

আজকে বিশ্বের সবচেয়ে দামি ১০টি মোবাইল ফোনের সাথে পরিচয় করিয়ে দিব,যার দাম আকাশছোঁয়া।এর মধ্যে সেরা দামের প্রথম ৫টি ফোনই আইফোন সিরিজের দখলে।বাকী মোবাইল গুলো অন্যান্য কোম্পানির।এখানে প্রায় বেশিরভাগ ডিভাইসের আরেকটি নরমাল হবুহু ফোন আছে,যেমন নিচের লিস্টে দেওয়া আইফোনগুলো আর নরমাল আইফোনগুলোর সকল সিস্টেম সেইম,শুধুমাত্র পার্থক্য এটাই যে নিচের ফোনগুলোর ডিজাইনে বিভিন্ন উন্নতমানের হিরা,ডায়মন্ড,স্বর্ণ,টাইটান ইত্যাদি ববহার করা হয়েছে।মূলত হিরা,ডায়মন্ড,স্বর্ণ,টাইটান ইত্যাদি ব্যবহারের ফলে ফোনগুলোর দাম আকাশছোঁয়া হয়েছে।তাছাড়া নিচের দুইএকটা মোবাইল সেটের ফিচার দেখলে আপনার অবাক লাগতে পারে। যেমন নিচের ‘Vertu Signature Cobra’ ফোনটি মাত্র ২ইঞ্চি ডিসপ্লের এবং আরো হাস্যকর কথা হচ্ছে এই মোবাইল সেটটির ইন্টারনাল মেমোরি মাত্র ১এম্বি।কিন্তু তবুও সবাইকে চাপিয়ে বিশ্বের দামি টপ টেন ফোনগুলোর মাঝে এটি জায়গা করে নিয়েছে।কারণ একটাই এতে ব্যবহার করা হয়েছে cut diamond, white diamond দুইটি পান্না এবং 439 টি Rubies ইত্যাদি।

 

তো চলুন মোবাইল সেটগুলার সাথে পরচিত হওয়া হই।

প্রথমে টপ টেন থেকে শুরু করা যাক।

 

10.Sony Ericsson Black Diamond (Price →$300,000)Sony-Ericson-Black-Diamond.png

এটির দাম দুই কোটি বিয়াল্লিশ লাখ দুই হাজার পাঁচশত টাকা।

এটির ডিজাইন করেছেন ‘Jaren Goh’। এই সেটটিতে আছে ব্ল্যাক ডায়মন, টাইটানের সাথে পলিকার্বনের একটি স্তর। টাইটান একটি মহামূল্যবান ধাতু। 4 মেগাপিক্সেলের ক্যামেরা, 2 ইঞ্চি OLED display, 128 MB ইন্টারনাল মেমরি, ব্লুটুথ এবং ওয়াইফাই।

 

9.Vertu Signature Cobra (price →$3,10,000) Vertu-Signature-Cobra.jpg

এটির দাম দুই কোটি পঞ্চাশ লাখ নয় হাজার দুইশত পঞ্চাশ টাকা।

এটির ডিজাইন করেছেন ফ্রান্সের গহনা নির্মতা Boucheron। এটিতে আছে একজোড়া cut diamond, white diamond দুইটি পান্না এবং 439 টি Rubies। কোনো ক্যামেরা নেই এতে। মাত্র 1MB ইন্টারনাল মেমরি।😃😃

 

8.Gresso Luxor Las Vegas Jackpot (Price →$1 Million)Gresso-Luxor-Las-Vegas-Jackpot.jpg

এটির দাম আট কোটি সাতষট্টি লাখ পাঁচ হাজার টাকা। এটি ডিজাইন করেছেন Gresso। এতে 180 গ্রাম পিউর স্বর্ণ দ্বারা তৈরি। সাথে আছে 200 বছরের পুরাতন African Blackwood এবং Black diamond।

 

7.GoldVish Le Million (Price →$1.3 Million)phone5.jpg

এটির দাম দশ কোটি আটচল্লিশ সাতাত্তর হাজার পাঁচশত টাকা। সুইজারল্যান্ডের বিখ্যাত ডিজাইনার Emmanuel এটি ডিজাইন করেছেন। এটি বিশ্বের ৭তম দামি মোবাইল ফোন। এতে আছে 18 ক্যরেট white Gold এবং 120 ক্যারেট VVS-1 graded ডায়মন।

 

6.Diamond Crypto Smart Phone (Price →$1.3 Million)Diamond-Crypto-Smartphone-2.jpg

এটির দাম দশ কোটি আটচল্লিশ সাতাত্তর হাজার পাঁচশত টাকা। এটি বিশ্বের ৬তম দামি মোবাইল ফোন। Peter Aloisson এটি ডিজাইন করেছেন। এ মোবাইলের সবগুলো পার্টস ই প্লাটিনাম দ্বারা তৈরি। এটির Ancort Logo এবং Navigation Key 18 ক্যারেট Yellow/rose Gold দ্বারা তৈরি। সাথে আছে 1.5 ক্যারেট Cut diamond।

 

5.iPhone 3G Kings Button (Price →$2.5 Million)iPhone-3G-Kings-Button.jpg

এটির দাম বিশ কোটি ষোল লাখ সাতাশি হাজার পাঁচশত টাকা। Peter Alosson এটি ডিজাইন করেছেন। এটিতে আছে 18 ক্যরেট Yellow, white এবং Rose Gold। এটির বাটনে আছে আছে 6.6 ক্যারেট ডায়মন্ড।

 

4.Supreme Goldstriker iPhone 3G 32 GB (Price → $3.2 million)

Goldstriker-iPhone-3GS-Supreme.jpg

এটির দাম পঁচিশ কোটি একাশি লাখ ষাট হাজার টাকা। অস্ট্রেলিয়ার ব্যবসায়ী Gold Striker এটির ডিজাইন করেছেন। এতে 22 ক্যারেটের 271 গ্রাম স্বর্ণ এবং 136 ডায়মন্ড আছে। এটির সামনের সরু ফ্রেম, বাটন এবং লোগোটি ডায়মন্ড দিয়ে সাজানো।

 

3.iPhone 4 Diamond Rose Edition (Price →$8 Million)Iphone-4-Diamond-Rose-Edition-1-thumb-550x3661.jpg

এটির দাম চুষট্টি কোটি চুয়ান্ন লাখ টাকা।Stuart Hughes এটির ডিজাইন করেছেন। এটি Rose Gold, Diamond এবং প্লাটিনাম দ্বারা তৈরি। এতে 100 ক্যারেট ডায়মন্ড আছে। সামনের সরু ফ্রেম, বাটন এবং লোগোটি সাজাতে 500 পিছ ডায়মন্ড ব্যবহার করা হয়েছে।

2.iPhone 5 Black Diamond (Price →$15.3 Million)ht_iphone5_black.jpg

মোবাইলটির দাম একশো তেইশ কোটি তেতাল্লিশ লাখ সাতাইশ হাজার পাঁচশত টাকা।

ব্রিটিশ ডিজাইনরি Stuart Hughes এটি ডিজাইন করেছেন। এতে আছে 26 ক্যারেট ব্ল্যাক ডায়মন্ড। ফোনের পেছনের অংশটি সলিড গোল্ড দ্বারা তৈরি এবং Apple logoটি 53টি ডায়মন্ড দ্বারা সাজানো। এটির Screen টি Sapphire Glass দ্বারা তৈরি। এটির হোম বাটনটি 26 ক্যারেট 600 ব্ল্যাখ ডায়মন্ড দিয়ে সাজানো। এতে 135 গ্রাম 24 ক্যারেট স্বর্ণ আছে।

 

1.Falcon SuperNova Pink Diamond iPhone 6 (Price →$95.5 Million)iphoneinside2.jpg

 

এটির দাম সাতশো সত্তর কোটি চুয়াল্লিশ লাখ বাষট্টি হাজার পাঁচশত টাকা।

আর হ্যাঁ এটাই হল আজ অবধি এই গ্রহের সবচেয়ে দামি মোবাইল ফোন।এমনিতে সেরকম কিছুই নেই এই ফোনেতে, আছে বলতে একটা ১৮ ক্যারেটের হীরে। আর নামটা শুনেই তো বুঝেছেন যে হীরেটার রঙ পিঙ্ক। আবার নীলও হতে পারে। এছাড়া অ্যাপেলের ফোনে যা যা অত্যাধুনিক প্রযুক্তিগত ব্যাপার থাকে সেগুলোতো চূড়ান্ত মাত্রায় আছেই।সুতরাং আপনি চাইলেই কিনতে পারেন, তবে তার জন্য একটু বেশীই জমাতে হবে আপনাকে।😜😜