বিশ্বসেরা ৫টি Handgun

Now Reading
বিশ্বসেরা ৫টি Handgun

যদি আপনি Handgun এর উপযুক্ত হন তাইলে এটি আপনার জন্য অনেক জরুরী। কেননা অনেক বন্দুক বানানো হয় Self Defense এর জন্য। অনেক ব্যাবসায়ী আছেন যারা প্রতিনিয়ত ছিন্তাইকারির স্বীকার হচ্ছেন। এবং অনেকে এদের কবলে পরে নিজের জীবন ও হারাচ্ছেন। তাদের জন্য অনেক ক্ষেত্রে এটি জরুরী। আত্মরক্ষার জন্য। এসব পর্যায়ে বিবেচনা করে কিছু Handgun আছে শীর্ষে। এসব Handgun নিয়ে এখন আলোচনা করব।

1. The Glock 19
এটি সবচেয়ে বহুমুখী মডেলগুলির একটি যা একটি গোপন বহন হ্যান্ডগান এবং একটি Self Defence Handgun হিসাবে পুরোপুরি কাজ করে। যদিও এটি কোন পকেট পিস্তল নয়, তবে Glock 19 হচ্ছে একটি কম্প্যাক্ট পিস্তল যা 4.01 ইঞ্চি ব্যারেল এবং মোট দৈর্ঘ্য 7.36 ইঞ্চি। গ্লক 19 এর একটি পলিমার ফ্রেম রয়েছে যা ওজনকে উল্লেখযোগ্যভাবে কমিয়ে দেয়। Glock 19 মোট 15 টি 9mm রাউন্ড ধারণ করে, তবে 17 এবং 33 রাউন্ড Glock ম্যাগাজিনও ব্যাবহার করা যায়। Glock 19 ফ্ল্যাশ আলো, লেজার, এবং অন্যান্য জিনিসপত্র সংযুক্তি জন্য একটি সমন্বিত picatinny রেল আছে। Glock 19 ব্যাপকভাবে সারা বিশ্ব জুড়ে পুলিশ এবং সামরিক বাহিনী দ্বারা গৃহীত হয়েছে কারণ এর নির্ভরযোগ্যতা। গ্লক 19 বিভিন্ন পরিবেশের বিভিন্ন ধরণের অপারেশন করতে সক্ষম, এবং সারা বিশ্ব জুড়ে সফল হয়েছে।Glock পিস্তলগুলিতে কোন ম্যানুয়াল নিরাপত্তা নেই, কিন্তু আগ্নেয়াস্ত্রটিতে তিনটি পৃথক safeties আছে। এটি সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ ট্রিগার সুরক্ষা প্রক্রিয়া অন্তর্ভুক্ত।

Glock-19-Review.jpg

2. THE BROWNING HI-POWER
বিশ্বব্যাপী হিট পাওয়ার 90 টিরও বেশি দেশে ব্যবহৃত হয়, এটি ছিল প্রথম আশ্চর্য Nine। একটি ম্যাগাজিন ক্ষমতা সঙ্গে 9mm handguns প্রয়োগ শব্দ হচ্ছে wonder nines। ব্রাউনিং হাই পাওয়ারটি 1920-এর দশকে উন্নত ছিল, এটি মূলত একটি Jhon Browning প্রকল্প ছিল, কিন্তু শেষ হওয়ার আগেই তিনি এই নামটি পাস করেছিলেন। এই হাই পাওয়ারের আগ্নেয়াস্ত্রটি এখনও খুব জনপ্রিয় । এটি শক্তিশালী, কিন্তু হালকা, এবং অস্ত্র পাতলা। হাতে সান্ত্বনা শীর্ষ খাঁজ এবং সবচেয়ে ergonomic ডিজাইন পর্যন্ত এক দ্বারা।

7262430-17512589-thumbnail.jpg

3. THE CZ 75B
সোভিয়েত ইউনিয়ন থেকে বেরিয়ে আসা সবচেয়ে আকর্ষণীয় ডিজাইনগুলির মধ্যে CZ 75 হল। CZ 75 CZ দ্বারা উত্পাদিত পিস্তল একটি বড় পরিবারের সাথে সংযুক্ত একটি নাম। CZ SP01- এর মত, এটি এখনও একটি CZ 75, কিন্তু এটি একটি রেল বৈশিষ্ট্য। আধুনিক CZ 75 পুলিশ এবং সামরিক বাহিনীর জন্য ইউরোপ জুড়ে একটি প্রিয় পিস্তল। অস্ত্রশস্ত্র বিশ্বের সমালোচকদের মধ্যেও এটি প্রিয়। CZ 75 সব ধাতব ফ্রেমকে দেখায় যা ভারী যদিও, পলিমার ফ্রেমগুলির তুলনায় এটি আরও বেশি পরিমাণে ছড়িয়ে পড়ে। অস্ত্র আপনার ব্যক্তিগত পছন্দ অনুযায়ী একটি নিরাপত্তা বৈশিষ্ট্য পারে। এটি হাতে খুব স্বাভাবিক বলে মনে হয়, এবং পাতলা কপিকল একটি পত্রিকা রাখা 9 mm 16 রাউন্ড রাখা সক্ষম।

THE CZ 75B.jpg

4. THE S&W SHIELD
এটি তৈরির মুল কারণ এটি একটি স্ট্যাকের বন্দুক যা গোপন বহন জন্য ডিজাইন করা হয়। আকার অনুযায়ী S & W শিল্ড ছোট এবং লাইটওয়েট এবং অত্যন্ত আরামদায়ক গোপন বহনজোগ্য। সামগ্রিক দৈর্ঘ্য মাত্র 6.1 ইঞ্চি এবং এটি একটি নিছক20.8 ounces।এটি একটি ছোট পিস্তল যদিও 8 রাউন্ড বহন করার ক্ষমতা আছে। এটির সাহায্যে সহিংস পরিস্থিতিতে 99% মোকাবেলা করার জন্য যথেষ্ট ক্ষমতা দেয়।

THE S&W SHIELD.jpg

5. SPRINGFIELD XD(M)
এটি সেরা 9 mm Handgun গুলোর মধ্যে একটি। 5.25 ইঞ্চি ব্যারেল আপনাকে একটি চমত্কার দৃষ্টিশক্তি ব্যাসার্ধ প্রদান করে যা অস্ত্রশস্ত্রকে সহজে অঙ্কুর করতে সাহায্য করে, বিশেষত দীর্ঘ রেঞ্জে। এই উজ্জ্বল সামনে দৃষ্টিশক্তি উভয় এবং কম আলো পরিস্থিতিতে দেখতে খুবই সহজ। সামনে দিকটিতে ডানদিকে আপনি লক্ষ্য করবেন স্লাইডের একটি বিভাগ সরানো হয়েছে। এই একটি বাজ কাটা হিসাবে পরিচিত। এই কম ওজন স্লাইড অস্ত্র দ্রুত চক্র অনুমতি দেয়। আত্মরক্ষা এবং হোম প্রতিরক্ষা জন্য একটি চমৎকার পছন্দ অস্ত্র। তার ফ্লাশ ফিট ম্যাগাজিনে 9mm 19 রাউন্ড ধারণ করে।

SPRINGFIELD XD(M.jpg

নারী কে কি সমান অধিকার দেয়া উচিত?

Now Reading
নারী কে কি সমান অধিকার দেয়া উচিত?

নারীবাদী প্রধান বক্তব্য হচ্ছে “আমাদের সমান অধিকার দেয়া  হোক ।“

আচ্ছা আদৌ কি নারী দের সমান অধিকার দরকার?

না, আমি মনে করি নারীদের বেশী অধিকার দেয়া উচিত।

হ্যা, অনেক বেশী।

চিন্তা করুন তো, একটা মেয়ে/মহিলা বাসে দাঁড়িয়ে যাচ্ছে, কেউ উঠে সিট দিচ্ছে না, সবাই ধাক্কা দিয়ে যাচ্ছে তাকে..

মেয়েটি/মহিলাটি অপমানে জ্বলছে,কিন্তু সে কাউকে মুখ ফুটে বলতে পাড়ছে না যে আমাকে একটা সিট ছেড়ে দিন, কারন সে একদিন সমান অধিকার নিয়ে অনেক হইচই করেছিলো।

কিন্তু আজকে সে বুঝতে পারছে তার আসলে বেশী অধিকার দরকার..

একটা মেয়ে বিবাহিত, পুরো সংসার টা তার সামলাতে হয়, পাশাপাশি সে অনেক স্ট্রাগল করে পড়ালেখা করছে, অন্য ছেলেদের মত সে পুরো গাইডলাইন টা পাচ্ছেনা, তাই তার রেজাল্ট হয়তো অন্য ছেলেদের থেকে একটু খারাপ হবে, তাহলে তাকে কি সমান চোখে দেখা উচিত নাকি কিছু বেশী অধিকার দেয়া উচিত?

হ্যা প্রাইভেট ইউনিভার্সিটি গুলো এসব দিক চিন্তা করেই পুরো খরচের উপর ছেলেদের থেকে মেয়েদের কিছুটা বেশী ওয়েভার দিয়ে থাকে। তাহলে কেনো আমরা সমান অধিকার নিয়ে হইচই করি? ইসলাম ধর্মে মেয়েদের পর্দা যেমন বাধ্যতামূলক তেমন তাদের অধিকার ও কিন্তু অনেক বেশী।

মেয়েদের বাবার বাড়িতে যেমন সম্পত্তি পাওনা থাকে, তেমনি তার স্বামীর দায়িত্ব ও থাকে স্ত্রীর সম্পুর্ন ভরণপোষণ বহন করার। আবার স্ত্রী ঘরে বসে থাকতেও বাধ্যতামূলক করেনি ইসলাম, পর্দায় থেকে শালীন থেকে সে ব্যবসা, চাকরী, পড়ালেখা সব করতে পারবে, এমন কি পড়ালেখা ফরজ!

বিয়ের সময় স্বামীর দায়িত্ব স্ত্রী কে দেনমোহর দেয়া, স্ত্রীর কিন্তু স্বামী কে কোনো টাকা পয়সা দেয়ার দরকার নেই। আর মেয়েদের কি পরিমান সম্মানের চোখে দেখতে বলা হয়েছে তাতো বলে শেষ করাও বোধহয় সম্ভব নাহ

অথচ অনেক মেয়েরা এই অর্থ গুলো ভুল ভাবে বোঝে, তারা বেশী অধিকার পেয়েও সমান অধিকারে নেমে আসতে চায়!!

আচ্ছা একটু চিন্তা করি, সমান অধিকার কি সম্ভব? একটা ছেলে তো ছিড়া গেঞ্জি পরে বের হলেও কেউ তাকাবেনা, অথচ একটা মেয়ের জামার লম্বা টা কম হলেও মানুষ বাজে ভাবে তাকাবে। কতজন এর চোখ গালবেন বলেন?

আমাদের সমাজ টাই যে এমন…

মেয়েরা সমান অধিকার চাবে, কিন্তু তার কাজ করে দেয়ার জন্য তার ছেলেবন্ধু কিন্তু লাগে..

আমি ইউনিভার্সিটি তে দেখি, একটা ফ্রেন্ড সার্কেল এ মেয়েরা ছেলে দের বলছে দোস্ত এটা এনে দে, ওটা এনে দে..

হ্যা ফ্রেন্ড হিসেবে আমিও বলি, ওরা হেল্প ও করে? কেন করে?

কারন মেয়েরা অমূল্য & মারাত্মক সম্মানের একটা জাতি, তারা শুধু মানুষ ই নয়, কিছুটা বেশী।

তারা জন্ম দেয়, তারা মা হয়, যে প্রতিভাবান সন্তান জন্ম দিয়ে হয় রত্নগর্ভা।

তারা কারো স্ত্রী হয় যার মুখ খানা দেখে তার স্বামী সারাদিনের ক্লান্তি ভুলে যায়।

তারা কারো বোন হয় যে ভাইকে হতাশ দেখে পাশে বসে সান্তনা দেয়।

তারা শাশুড়ি হয়, আরেক ঘরের মেয়েটিকে নিজের মেয়ের মত বুকে টেনে নেয়।

নারী মুল্যবান। নারী সম্মানের যোগ্য।

এটা পুরুষ এর আগে নারীকে নিজের বুঝতে হবে। নারী কে যদি সমান অধিকারের জন্য কাদতে হয় তাহলে এর চেয়ে দুর্গতি আর কি আছে?

তাকে ইতিমধ্যে যে বেশী অধিকার দেয়া হয়েছে তা নিয়েই নারীর এগিয়ে যেতে হবে এবং সবাই কে সাহায্য করতে হবে। নারী নিজে যদি নিজেকে আগে সম্মান করতে জানে, তাহলে অন্যরা তাকে সম্মান করবে।

নারী যদি নিজে সস্তা আচরন করে সে কিভাবে সম্মান পাবে?

একটি ছেলের কাধে দামী ক্যামেরা আছে, মেয়েটি যদি তার পেছনে বেহায়ার মত ঘুরতে থাকে, তার একটি ছবি তুলে দেয়ার জন্য, তাতে কি তার সম্মান টা বাড়ে? নারী যদি ফেসবুকে হাজার হাজার ফলোয়ার পাওয়ার জন্য নিজের মুল্যবোধ বিসর্জন দিয়ে অসামাজিক ছবি দিতে থাকে,এতে কি তার সম্মান বাড়ে? নারী যদি একটি ছেলের সাথে ১০ বছর সম্পর্কে থাকার পর তাকে ছেড়ে চলে যায় অন্য একটি ছেলের  কাছে , শুধুমাত্র অন্য ছেলেটি বেশী ধনী এ কারনে, এতে কি নারীর সম্মান বাড়ে?

সকল নারী দের উদ্দেশ্যে বলছি, তোমরা আগে নিজের মুল্যবোধ, সম্মান রক্ষা করো। নিজেদের নীতিগুলো শক্তিশালী করো। একদিন নিশ্চই তোমাদের প্রাপ্য সম্মান টুকু পাবে। ভুলে যেয়ো না, যে পুরুষ কে তুমি জন্ম দাও তার ক্ষমতা নেই তোমাকে অসম্মান করার, তুমি তার চেয়ে অনেক বেশী শক্তিশালী।

কেনো একটি পুরুষ মানুষ তোমাকে অপমান করবে? তোমাকে রাস্তায় অসম্মান করলে তুমি চুপ করে শুধু কাঁদবে কেনো? প্রতিবাদ করতে শেখো।

আর যে তোমাকে সম্মান করছে তাকেও তুমি সম্মান করতে শেখো। বেশী সুযোগ ভোগ করতে গিয়ে বিনয় হারিয়ে ফেলো না যেনো। নারী তুমি অন্যদের অনুপ্রেরণা দিতে শেখো। নিজেকে একটি বিশাল উদাহরণ এ পরিনত করতে শেখো, যেনো তোমার পরের প্রজন্মের নারীরা তোমার নাম শুনে চোখ উজ্জ্বল করে বলে, আরে! উনিতো আমার আদর্শ!!! উনার মত হতে চাই আমি…

পবিত্র কোরানে একটি উক্তি আছে –

” তারা(স্ত্রী রা) তোমাদের পোশাক এবং তোমরা তাঁহাদের পোশাক” (সুরাহ বাকারা, আয়াত ১৮৭)

এই একটি আয়াতেই বোঝা যায়, শুধু স্ত্রী কেই বলা হয়নি তুমি স্বামীর সেবা করো, স্বামী কেও বলা হয়েছে সমান সেবা তার স্ত্রী কে করতে।

এ থেকে এই ব্যাপার টা পরিষ্কার যে নারীর অধিকার পুরুষ এর চেয়ে কোনো অংশে কম নয়, বরং অনেকাংশে বেশী। শেষ একটি কথাই শুধু বলতে চাই,

It’s a man’s

Job to respect

WOMAN.

But it’s a woman’s

Job to give him

Something to RESPECT”